বিশ্বনাথের প্রথম অনলাইন পত্রিকা

বিশ্বনাথে মার্কেটের দেয়াল ভেঙ্গে চুরির মূল হোতা সোহাগ গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক :: সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলা সদরের পুরান বাজারস্থ আল-হেরা শপিং সিটির দেয়াল ভেঙে ‘জুয়েল মোবাইল গার্ডেন’ নামের একটি মোবাইলের দোকানে দুর্ধর্ষ চুরি ঘটনায় আন্তঃজেলা মোবাইল চোর চক্রের মূল হোতা সোহাগ আহমেদ (৩৩)’কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সে সুনামগঞ্জ জেলার তাহিরপুর উপজেলার ভাটি তাহিরপুর গ্রামের জয়নাল আহমদের পুত্র ও সুনামগঞ্জ শহরের হাছননগর এলাকার পুরবী-৬৫ বাসার বর্তমান বাসিন্দা। শুক্রবার (১ নভেম্বর) ভোরে সিলেট দক্ষিণ সুরমার খোজারখলা রেল ক্রসিং এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে থানা পুলিশ। গ্রেফতারের সত্যতা নিশ্চিত করেন বিশ্বনাথ থানার অফিসার ইন-চার্জ (ওসি) শামীম মুসা।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গ্রেফতারকৃত সোহাগ আহমেদ আন্তঃজেলা মোবাইল চোর চক্রের মূল হোতা। তার বিরুদ্ধে মোবাইলে দোকানে চুরির একাধিক মামলা রয়েছে। জুয়েল মোবাইল গার্ডেন-এ সংঘঠিত চুরির ঘটনায় পূর্বে গ্রেফতারকৃত শাহানা বেগমের তথ্যের ভিত্ত্বিতে মোবাইল ট্রেকিং এর মাধ্যমে বিশ্বনাথ থানার পুলিশ পরিদর্শক রমা প্রসাদ’র নেতৃত্বে থানার এসআই অরূপ সাগর গুপ্ত কমল ও এসআই দেবাশীষ শর্ম্বা সহ একদল পুলিশ সিলেটের দক্ষিণ সুরমা এলাকার খোজারখলা রেল ক্রসিং এলাকা থেকে সোহাগ আহমেদকে গ্রেফতার করা হয়। এসময় তার নিকট থেকে চোরাইকৃত (মামলার এজাহারে উল্লেখিত) দুটি মোবাইল সেট উদ্ধার করা হয়। শুক্রবার দুপুরে গ্রেফতারকৃত আসামীকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে এবং ঘটনার রহস্য উদঘাটনের জন্য তার ৭দিনের আবেদন করা হয়েছে।

সূত্রে জানা যায়, গত ২৩ আগস্ট সিলেটের জকিগঞ্জে বন্ধুকযুদ্ধে নিহত ডাকাত আব্দুস শহিদের ঘনিষ্ট বন্ধু গ্রেফতারকৃত সোহাগ আহমদ। পূর্বে গ্রেফতারকৃত ওই শাহানা বেগমকে তারা উভয়েই বোন বলে সম্ভোধন করে। সিলেটে গড়ে উঠা মোবাইল চুরির সিন্ডিকেট নিয়ন্ত্রন করে তারা।

উল্লেখ, গত ৩ সেপ্টেম্বর রাতে আল-হেরা শপিং সিটি’র নিচ তলায় অবস্থিত জুয়েল মোবাইল গার্ডেনের পিছনের দেয়াল ভেঙ্গে দুর্ধর্ষ চুরি সংগঠিত হয়। এসময় চুরেরা জুয়েল মোবাইল গার্ডেনের ক্যাশে নগদ টাকা সহ কয়েল লাখ টাকার মালামাল চুরি করে নিয়ে যায়। এঘটনায় ৪ সেপ্টেম্বর দোকানের স্বত্বাধিকারী জুয়েল আহমদ বাদি হয়ে বিশ্বনাথ থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা নং- ৪। মামলা দায়েরের পর নগরীর মজুমদারী এলাকার তরঙ্গ-৩৯ বাসায় অভিযান চালিয়ে শাহারা বেগমকে গ্রেফতার করে থানা পুলিশ। এসময় তার কাছ থেকে চোরাইকৃত ৮টি মোবাইল সেট উদ্ধার করা হয়।


Endofcontent

Endofcontent
You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!