আল আমিন ব্রিকস্ ফিল্ড AM-ACCOUNTANCY-SERVICES-BBB

বিশ্বনাথে বিপুল উৎসাহ-উদ্দিপনার মধ্য দিয়ে মাছ ধরা উৎসব পালিত

বিশ্বনাথ নিউজ ২৪ ডট কম :: ডিসেম্বর - ২৯ - ২০১৫ | ১: ১৮ অপরাহ্ন

DSC 0750

DSC_0790এমদাদুর রহমান মিলাদ ও নূর উদ্দিন :: বিশ্বনাথের পল্লীতে বিপুল উৎসাহ-উদ্দিপনার মধ্য দিয়ে বার্ষিক “মাছ ধরা উৎসব” পালিত হয়েছে। বার্ষিক এই “মাছ ধরা উৎসব”  মঙ্গলবার উপজেলার দৌলতপুর ইউনিয়নের গোয়াহরি গ্রামের পশ্চিমের দরং বিলে অনুষ্ঠিত হয়। এতে অংশগ্রহন করেন গ্রামের কয়েক শতাধিক মানুষ। এ বছর মাছের সংখ্যা কম থাকায় খালি হাতে ঘরে ফিরতে হয়েছে অনেককেই। শিকারকৃত মাছের মধ্যে ছিল বোয়াল, শউল, রুই, কাতলাসহ ভিবিন্ন জাতের মাছ বেশী ছিল। এদিকে গোয়াহরি গ্রামের ঐহিত্য অনুযায়ী প্রতি বছরের মাঘ মাসের পহেলা তারিখ এই মাছ ধরা উৎসব অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলে বিলের পানি কমে যাওয়ায় গতকালই অনুষ্ঠিত হয় মাছ ধরা। ফলে গ্রামের অনেক প্রবাসীর ইচ্ছে থাকলেও তারা দেশে আসতে পারেননি। মাছ ধরা উৎসবকে কেন্দ্র করে গোয়াহরি গ্রামে গত কয়েকদিন ধরে উৎসবের আমেজ রিবাজ করছিল।
“মাছ ধরা উৎসব” এই উৎসবে অংশ নিতে মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে গোয়াহরি গ্রামের সৌখিন মানুষ বিলের পারে এসে জমায়েত হতে থাকেন। বেলা বাড়ার সাথে সাথে বিলের পারে লোকসমাগম বাড়তে থাকে। পূর্ব নির্ধারিত সময় সকাল সাড়ে ১০টা হওয়ার সাথে সাথে সবাই এক সাথে বিলে নেমে শুরু করেন মাছ ধরা। শুরু হয় ঝপ ঝপ পলো বাওয়া। প্রায় ২ ঘন্ঠাব্যাপী এ “মাছ ধরা উৎসব” গোয়াহরি গ্রামের সব বয়সী পুরুয় অংশ নেন।
সরেজমিনে গোয়াহরি বিলে গিয়ে দেখা যায়, মাছ শিকার করতে নিজ নিজ হাতিয়ার নিয়ে বিলের উপর ঝাপিয়ে পড়েন লোকজন। যাদের পলো নেই তারা মাছ ধরার ছোট ছোট বিভিন্ন জাল নিয়ে মাছ শিখারে ব্যস্ত সময় কাটান। এসময় মাছ ধরার এ দৃশ্যটি উপভোগ করতে বিলের পারে ছোট ছোট শিশু থেকে বৃদ্ধ বয়সের লোকজন, দূর থেকে আসা অনেকের আত্বীয়-স্বজন ও বন্ধু-বান্ধবকে দায়িড়ে থাকতে দেখা যায়।
প্রতিবছরের ন্যায় এবারও ছেলে বুড়ো মিলিয়ে প্রায় ৩ শতাধিক লোক পলো বাওয়া উৎসবে অংশগ্রহন করেন। বিল থেকে অন্যান্য বছরের তুলনায় মাছ শিকার হয়েছে কম। অংশগ্রহনকারি কয়েকজন ১-২টি করে মাছ ধরে আনন্দ-চিত্তে বাড়ি ফিরেছেন। আবার অনেকেই খালি হাতে বাড়ি ফিরতে হয়েছে। গোয়াহরি গ্রামের মানিক মিয়া, আমির আলী, সমুজ আলী সহ অনেকেই ৩/৫টি করে বড় মাছ শিকার করতে সক্ষম হয়েছেন বলে তারা জানান।
যুক্তরাজ্য প্রবাসী আবুল বশর বলেন, ছোট বেলা অনেক দিন বিলে পলো নিয়ে মাছ শিকারে অংশগ্রহন করেছি। কিন্তু র্দীঘদিন পর বিলে মাছ ধরতে এসে খালি হাতে বাড়ি ফিরতে হয়েছে।
গোয়াহরি গ্রামের ইকবাল হোসেন বলেন, প্রতি বছরের ন্যায় এবছর বার্ষিক মাছ ধরা উৎসব পালিত হয়। আগের মতো বিলে তেমন মাছ পাওয়া যায়নি।
গোয়াহরি গ্রামের মাওলানা ইউনূছ আহমদ বলেন, পলো দিয়ে মাছ ধরা আমাদের গ্রামের একটি ঐতিহ্য। আমার কাছে মাছ ধরা উৎসব খুব মজার বিষয়। শত ব্যস্ততার মধ্যেও আমি এ উৎসবে আসি। আমাদের গ্রামবাসী যুগ যুগ ধরে এই উৎসব পালন করে আসছেন।DSC_0750

আরো সংবাদ

৩ কি:মি: জুড়ে সৌদির পতাকা টানিয়ে আলোচনায় আব্দুস শুকুর

বিশ্বনাথে প্রয়াত হাজী ছাদিক মিয়া চৌধুরীর মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া মাহফিল

বিশ্বনাথ প্রেসক্লাবে ব্রিটেনের কাউন্সিলর জাহেদ চৌধুরী

‘শীর্ষ ১২ দূর্নীতিবাজকে আইনের আওতায় আনলেই ৫০% দূর্নীতি কমবে’

মালয়েশিয়ার দশম প্রধানমন্ত্রী আনোয়ার ইব্রাহিম

বিশ্বনাথে সড়ক দুর্ঘটনায় এইচএসসি পরীক্ষার্থী নিহত, আহত ৫

সড়ক দুর্ঘটনায় আহত গোলাপগঞ্জের জামায়াত নেতার মৃত্যু

বিশ্বনাথে ইয়াবাসহ ২ মাদক কারবারী আটক

মোক্তার আলী ফাউন্ডেশনের বৃত্তি পরীক্ষা সম্পন্ন

দেশের মানুষ জেগে উঠেছে -সিলেটে মির্জা ফখরুল

জৈন্তাপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় ২ স্কুলছাত্র নিহত

সিলেটে শুক্রবার থেকে বাস চলাচল বন্ধ, শনিবার পরিবহন ধর্মঘট

শেষ হলো সিলেটে হেফাজতের ইজতেমা

ওসমানীনগরে বাসের চাপায় পথচারী নিহত

বিশ্বনাথে বিএনপির প্রচারপত্র বিলি করলেন ইলিয়াসপত্মী লুনা