মঙ্গলবার, ২১ মে, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |
সর্বশেষ সংবাদ
ঐতিহ্যবাহী বিশ্বনাথ প্রেসক্লাবের কর্মকান্ড সর্বমহলে প্রসংশিত -শফিক চৌধুরী  » «   বিশ্বনাথে ইসমাঈল আলী এন্ড আত্তর আলী ফ্যামেলী ট্রাষ্ট’র খাদ্য সামগ্রী বিতরণ  » «   শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী থাকলে দেশবাসী উন্নয়ন পাবেন -শফিক চৌধুরী  » «   ভূমধ্যসাগরে মৃত্যুর মুখ থেকে বেঁচে ফেরা বিশ্বনাথের মাছুম এখন তিউনিসিয়ায়  » «   আ ন ম শফিকুল হকের শয্যাপাশে সাবেক অর্থমন্ত্রী মুহিত  » «   বিশ্বনাথের ব্যারিষ্টার নাজির লন্ডনে নিউহ্যামের ডেপুটি স্পিকার হিসেবে পুনঃনির্বাচিত  » «   বিশ্বনাথ প্রেসক্লাবের ইফতার মাহফিল আগামীকাল সোমবার  » «   বিশ্বনাথের নুরুল যুক্তরাজ্যে ৩য় বারের মতো কাউন্সিলর নির্বাচিত  » «   শিরোপা জেতে ক্রিকেটে বাংলাদেশের নয়া ইতিহাস  » «   বিশ্বনাথে গ্রাম ডাক্তার ঐক্য কল্যাণ সোসাইটির ইফতার মাহফিল  » «   বিশ্বনাথ উপজেলা বিএনপির দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত : ইফতার মাহফিল ২৫ রমজান  » «   বিশ্বনাথে মানব পাচারকারী রফিক চক্রের বিরুদ্ধে মামলা : স্বপরিবারে আত্মগোপনে   » «   বিশ্বনাথ-রশিদপুর প্রশস্থকরণ কাজ পরিদর্শনে নুনু মিয়া  » «   বিশ্বনাথ এডুকেশন ট্রাস্টের মেয়াদ উত্তীর্ণ কমিটিকে টাকা উত্তোলনের সুযোগ দিলেন কৃষি ব্যাংক ম্যানেজার  » «   বিশ্বনাথের কিশোর তাজ উদ্দিন হত্যা মামলায় একজনের ফাঁসি  » «  

গ্লোবাল এইড ট্রাস্টের ৬ষ্ঠ কিরাত ও বক্তৃতা প্রতিযোগীতা ‘কিউ ফেক্টর ৬’ অনুষ্ঠিত

বিশ্বনাথনিউজ২৪ :: গত ২রা ডিসেম্বর রবিবার বিকাল ৫ ঘটিকায় পূর্ব লন্ডনের রয়েল রিজেন্সি হলে গ্লোবাল এইড ট্রাস্টের পক্ষ থেকে ‘কিউ ফেক্টর ৬’ এর এক অনাড়ম্বর গালা ডিনার ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে এ বছরে কিরাত ও বক্তৃতা প্রতিযোগীতায় ৬ জনকে বিজয়ী ঘোষণা করে পুরস্কার দেয়া হয়।
কিউ ফেক্টর হচ্ছে চ্যারিটি সংগঠন গ্লোবাল এইড ট্রাস্টের একটি শিক্ষা মূলক প্রোগ্রাম। এ প্রোগ্রাম বিগত ৬ বছর যাবত অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। ১ম বছরে মাত্র ২০০ জন প্রতিযোগী হলেও এ বছরে (৬ষ্ঠ) প্রায় ২০০০ এর কাছাকাছি প্রতিযোগী দু‘টি গ্রুপে অংশ গ্রহণ করে। প্রতিযোগীতার বিভিন্ন ধাপ শেষে মোট ১২ জন প্রতিযোগী ফাইনালে অংশগ্রহণ করে। এর মধ্য থেকে মোট বিজয়ী ৬ জনের মধ্যে জুনিয়র গ্রুপে ৩ জন ও টিন গ্রুপে ৩ জনকে পুরস্কৃত করা হয়। প্রথম পুরস্কার ১০০০, দ্বিতীয় পুরস্কার ৭৫০ এবং তৃতীয় পুরস্কার ৫০০ পাউন্ডসহ সার্টিফিকেট ও ক্রেস্ট প্রদান করেন অনুষ্ঠানে আগত অতিথিরা। ৭ থেকে ১২ বছর বয়সীদের জুনিয়র গ্রুপে ১ম স্থান অধিকার করেন বার্মিংহামের ১০ বছর বয়সী প্রতিযোগী ওয়াকিল রহমান, পিতা: হাবিবুর রহমান ; ১ম রার্নাসআপ হন লন্ডনের প্রতিযোগী ১১ বছর বয়সী মোহাম্মদ নাঈম আহমদ, পিতা: আবদুল আহাদ ; দ্বিতীয় রানার্সআপ হন লন্ডনের ১১ বছর বয়সী প্রতিযোগী ইয়াহইয়া আলী, পিতা: ফয়জুল আলী। ১৩ থেকে ১৯ বছর বয়সী টিন গ্রুপে ১ম স্থান অধিকার করেন লন্ডনের প্রতিযোগী ১৪ বছর বয়সী ইব্রাহিম আজাদ, পিতা: আবুল কালাম আজাদ; প্রথম রানার্সআপ হন ১৪ বছর বয়সী লন্ডনের প্রতিযোগী হুমায়রা সিদ্দিকা, পিতা: হাবিবুর রহমান; দ্বিতীয় রানার্সআপ হন লন্ডনের প্রতিযোগী ১৫ বছর বয়সী হামিদুল ইসলাম, মাতা: আমিরুন নেছা। পুরুস্কার গ্রহণের সময় বিজয়ীদের অভিভাবকগণ মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন।
‘কিউ ফেক্টর- ৬‘ এর পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জর্ডান আউকাফ ইসলামিক মন্ত্রণালয়ের বিশিষ্ট ক্বারী শেখ ইসা মাহমুদ সালেম হাইনেহ। শেখ আব্দুল বাছির আল মাসুম এর পরিচালনায় অনুষ্ঠানের শুরুতে গ্লোবাল এইড ট্রাস্টের চেয়ারম্যান শেখ আব্দুর রহমান মাদানী স্বাগত বক্তব্য রাখেন। তিনি বলেন, আজকে কোরআনের মহব্বতের কারণেই আমরা এখানে সমবেত হয়েছি। কিউ ফ্যাক্টরের মাধ্যমে আমরা কোরআনকে প্রত্যেক ঘরে ঘরে পৌছে দিতে চাই। এজন্য আপনাদের সকলের সহযোগীতা চাই। অনুষ্ঠানের সকল প্রতিযোগী, অভিভাবক, আগত অতিথি, ইউকে আইএম,স্পন্সর সহ সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে বক্তব্য রাখেন গ্লোবাল এইডের সিইও এ এসএম আশরাফ মাহমুদ উজ্জল। তিনি বলেন, গ্লোবাল এইড ট্রাস্টের শিক্ষা সম্পসারণ কাজের একটি অংশ কিউ ফ্যাক্টর। এর মাধ্যমে যুক্তরাজ্যে বসবাসরত বিভিন্ন মুসলিম কমিউনিটি বিশেষ করে বাংলাদেশি, সোমালিয়ান, পাকিস্তানী, আফ্রিকান, ইয়েমেনী , তার্কি, ইন্ডিয়ান ও আরব কমিউনিটির ছেলে মেয়েরা কিরাত প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণ করেন। ছেলে মেয়েরা কিউফ্যাক্টরে অংশগ্রহণের মাধ্যমে আধ্যাত্মিক উন্নতি সহ অভিভাবকদের মনে প্রশান্তি এনে দেন। তিনি এর সাথে জড়িত সংশ্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ জানান। প্রোগ্রাম কো অর্ডিনেটর জুনায়েদ ভূইয়া সহ গ্লোবাল এইড ট্রাস্ট পরিবার ও সিনিয়র প্রডিউসার আহাদ আহমেদ সহ চ্যানেল এস পরিবারের প্রতি তিনি বিশেষ কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জ্ঞ্যাপন করেন। পরিশেষে তিনি সবার কাছে দোয়া ও সহযোগিতা কামনা করেন এবং বিজয়ীদের অভিনন্দন ও অংশগ্রহণকারীদের ধন্যবাদ জ্ঞ্যাপন করে তিনি তার বক্তব্য শেষ করেন।

অনুষ্ঠানে ইষ্ট লন্ডন মসজিদের ইমাম শেখ আব্দুল কাইয়ূম প্রতিযোগী ও সকল আগত অতিথিদের উদ্দেশ্যে নসিহা পেশ করেন। কিউ ফ্যাক্টরের ভূয়সী প্রশংসা করে তিনি বলেন, কিউ ফ্যাক্টর প্রত্যেক ছেলে মেয়ের মনে কোরআনের প্রতি ভালোবাসা সৃষ্টি করছে। তিনি আয়োজকদের এই প্রতিযোগীতা অব্যহত রাখার অনুরোধ করেন এবং আল­াহর দরবারে দোয়া করেন। বিশিষ্ট লেখক ও কলামিষ্ট ড. আব্দুল বারী তার বক্তব্যে বলেন, কোরআনের মেসেজটা শুধু মুসলমানদের মধ্যে না অন্যান্য সকলের মধ্যেই এটা ছড়িয়ে দেয়া উচিত। কিউ ফ্যাক্টর এক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের ডেপুটি মেয়র সিরাজুল ইসলাম তার বক্তব্যে বলেন, কোরআনকে যথাযথভাবে তেলাওয়াত করার ক্ষেত্রে কিউ ফ্যাক্টর গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। আমি কিউ ফ্যাক্টরের সাফল্য কামনা করি। অনুষ্ঠানের মিডিয়া পার্টনার চ্যানেল এস এর ফাউন্ডার মাহি ফেরদৌস জলিল বলেন, আমাদের লিগ্যাসি ক্যারি করার ক্ষেত্রে আমাদের ছেলেমেয়েদেরকে কোরআনের শিক্ষায় শিক্ষিত করা উচিত। কিউ ফ্যাক্টর আমাদের ছেলেমেয়েদেরকে কোরআনের শিক্ষায় শিক্ষিত করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। ব্যারিষ্টার নাজির আহমেদ তার বক্তব্যে কিউ ফ্যাক্টরের ভূয়সী প্রশংসা করেন এবং নিউহাম কাউন্সিলের পক্ষ থেকে নিজেদেরকে ডিফেক্টো হোস্ট হিসাবে ঘোষনা দিয়ে কিউ ফ্যাক্টরের সকল কার্যক্রমকে উক্ত বারায় স্বাগত জানান। অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন মিডিয়া ব্যক্তিত্ব ড. আবুল কালাম আজাদ, ইসলাম চ্যানেলের ফায়াজ ইউসুফজাই প্রমুখ। অনুষ্ঠানে কিউ ফেক্টর ৬ এর উপস্থাপক শেখ আব্দুল বাছির সহ সকল জাজদের মধ্যে সার্টিফিকেট সহ সকল গিফট তুলে দেয়া হয়। অনুষ্ঠানে সকল কোয়ার্টার ফাইনালিস্ট ও সেমি ফাইনালিস্টদের মধ্যে সার্টিফিকেট এবং ক্রেস্ট তুলে দেয়া হয়। সর্বশেষে ১২ জন ফাইনালিস্টদের মধ্যে ক্রেস্ট ও পুরস্কারের চেক তুলে দেয়া হয়। এ সময় গ্লোবাল এইডের এডভাইজার এবং ট্রাস্টি ডা: জিয়াউল হক, শেখ আবু সাইদ আনসারি, শেখ তারিক নসরুল্লাহ, ড. আখতারুজ্জামান, ড. কামরুল হাসান, হাফিজ আবু তাহের উপস্থিত থেকে তাদের মধ্যে পুরস্কার তুলে দেন। ফাইনালিস্টদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি জর্ডান আউকাফ ইসলামিক মন্ত্রণালয়ের বিশিষ্ট ক্বারী শেখ ইসা মাহমুদ সালেম হাইনেহ, গ্লোবাল এইড ট্রাস্টের চেয়ারম্যান শেখ আব্দুর রহমান মাদানী, সিইও এ এসএম আশরাফ মাহমুদ উজ্জল এর সাথে বিশিষ্ট লেখক ও কলামিষ্ট ড. আব্দুল বারী, টাওয়ার হ্যামলেট কাউন্সিলের ডেপুটি মেয়র সিরাজুল ইসলাম, ইস্ট লন্ডন মসজিদের ডিরেক্টর দেলোয়ার খান, সাব্বির আহমেদ কাওসার, নিউহাম কাউন্সিলের ডেপুটি স্পিকার ব্যারিস্টার নাজির আহমেদ, গ্রেটার সিলেট কাউন্সিলের চেয়ারপার্সন ব্যারিস্টার আতাউর রহমান, লন্ডন বাংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সৈয়দ নাহাস পাশা, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ জুবায়ের, সলিসিটার আবুল কালাম ও ড. আব্দুল মজিদ প্রমুখ। এ সময় চ্যানেল এস এর সিইও জ্বনাব তাজ চৌধুরী , ইউকে আইএম এর হেড অব রিলিফ জ্বনাব মুহাম্মদ রিয়াজ ও সাপ্তাহিক দেশ পত্রিকার সম্পাদক জ্বনাব তাইছির মাহমুদ উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানে উপচে পড়া দর্শক পরিলক্ষিত হয়। আমন্ত্রিত অতিথিদের বাইরেও অনেকেই অনুষ্ঠানে অংশ নেন এবং অনুষ্ঠানটির শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত সবাই মন প্রাণভরে উপভোগ করেন। অনুষ্ঠানে শাহিদ ফালাহ নাশিদ পরিবেশন করেন। সবশেষে শেখ আব্দুর রহমান মাদানীর দোয়ার মাধ্যমে অনুষ্ঠান শেষ হয়। অনুষ্ঠান শেষে সকল অতিথিদের ডিনার পরিবেশন করা হয়। উলে­খ্যে হলরুমের ধারণ ক্ষমতার বাইরে অতিথি আগমন করায় দুই পর্বে গালা ডিনার পরিবেশন করা হয়।

am-accountancy-services-bbb-1

সর্বশেষ সংবাদ