সোমবার, ২৫ মার্চ, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১১ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |
সর্বশেষ সংবাদ
বিশ্বনাথের মারুফ হোসেনের এমবিএ ডিগ্রী অর্জন  » «   উত্তর বিশ্বনাথ আমজদ উল্লাহ ডিগ্রি কলেজে মোটিভেশন সভা  » «   নিউজিল্যান্ডের মসজিদে হামলার প্রতিবাদে বিশ্বনাথে মানববন্ধন  » «   বিশ্বনাথে ‘আলোকিত খাজাঞ্চী’ ওয়েবসাইটের শুভ উদ্বোধন  » «   বিশ্বনাথে খাজাঞ্চী স্টেশন স্পোটিং ক্লাব’র ৮ম ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল সম্পন্ন  » «   বিশ্বনাথে হিরামন সমাজ কল্যাণ স্পোটিং ক্লাব’র ফুটবল টুর্নামেন্ট সম্পন্ন  » «   বিশ্বনাথের খাজাঞ্চীতে ৮ম ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল আজ  » «   বিশ্বনাথে প্রয়াত প্রভাত বৈদ্যের স্বরণে কৃষক লীগের শোক সভা  » «   বিশ্বনাথে শতাধিক প্রতিবন্ধীর মাঝে প্রবাসীর অর্থ বিতরণ  » «   স্পেশাল অলিম্পিকে সোনা জিতলেন বিশ্বনাথের তানভীর  » «   কোরিয়ার লটারিতে বিজয়ী হলেন বিশ্বনাথের সাইফ উদ্দিন  » «   বিশ্বনাথে খাজাঞ্চীতে ৩য় টি-টোয়েন্টি ইউনিয়ন লীগ সম্পন্ন  » «   বিশ্বনাথবাসীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানালেন আলতাব হোসেন  » «   বিশ্বনাথ উপজেলাবাসীকে কৃতজ্ঞতা জানালেন মিছবাহ উদ্দিন  » «   বিশ্বনাথে আ’লীগ সমর্থিত জুলিয়া বেগম মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত  » «  

যথাযোগ্য মর্যাদায় জাতীয় শোক দিবস পালিত

বিশ্বনাথনিউজ২৪ :: যথাযোগ্য মর্যাদায় বুধবার দিনব্যাপী নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে জাতীয় শোক দিবস পালিত হয়েছে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে ভোর থেকেই আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনসহ সরকার সমর্থক বিভিন্ন সংগঠনের নেতাকর্মীরা এবং সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা বঙ্গবন্ধু ভবনের সামনের রাস্তায় জড়ো হন। সকালে ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদনের মাধ্যমে জাতীয় শোক দিবসের কর্মসূচি শুরু হয়।
সকালে ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর প্রাঙ্গণে প্রথমে রাষ্ট্রপতি মো: আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদনের পর এই মহান নেতার প্রতি সম্মান জানিয়ে তারা কিছুক্ষণ নীরবে দাঁড়িয়ে থাকেন। তখন বাংলাদেশ সশস্ত্রবাহিনীর একটি চৌকস দল গার্ড অব অনার প্রদান করেন এবং বিউগলের করুণ সুর বাজানো হয়।
শ্রদ্ধানিবেদন শেষে বঙ্গবন্ধু এবং তার পরিবারের সদস্যদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। পরে দলীয় প্রধান হিসেবে শেখ হাসিনা এবং সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের দলের জ্যেষ্ঠ নেতাদের সঙ্গে নিয়ে আওয়ামী লীগের প থেকে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। শ্রদ্ধানিবেদন শেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর ছোট বোন শেখ রেহানাকে সঙ্গে নিয়ে ধানমন্ডির ৩২ নম্বরের ঐতিহাসিক স্মৃতিবিজড়িত বাড়ির ভেতরে যান। সেখানে ঘুরে ঘুরে তাঁর পিতার স্মৃতিচিহ্ন পরিদর্শন করেন এবং সেখানে প্রায় আধা ঘণ্টা সময় কাটান। এরপর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বনানী কবরস্থানে যান। সেখানে তাঁর মা, ভাই, ভাইয়ের স্ত্রীসহ ১৫ আগস্টের ঘটনায় নিহত সবার কবরে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন এবং তাঁদের কবরে ফুলের পাপড়ি ছিটিয়ে দেন তিনি। এরপর ফাতেহা পাঠ ও মুনাজাতে অংশ নেন। শ্রদ্ধানিবেদনের সময় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে মন্ত্রিসভার সদস্য ও আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদনের পর স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী ও প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদনের পর সাধারণ মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য স্থানটি উন্মুক্ত করে দেয়া হয়। হাতে কালো ব্যানার ও বুকে কালোব্যাজ পরিধান করে নারী-পুরুষ, স্কুল-কলেজের ছাত্রছাত্রী, শিশু-কিশোরসহ বিভিন্ন পেশাজীবী ও শ্রেণীর মানুষ বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানাতে ছুটে আসেন। সবাই বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদনের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুকে স্মরণ করেন।

am-accountancy-services-bbb-1

সর্বশেষ সংবাদ