রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ আশ্বিন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |
সর্বশেষ সংবাদ
সিলেট জেলা চ‌্যাম্পিয়ন বিশ্বনাথ উপজেলা ক্রীড়াচক্র  » «   আজ বিশ্বনাথের মুখোমুখি হচ্ছে কানাইঘাট  » «   বিশ্বনাথে প্রতারণা মামলার পলাতক আসামী গ্রেফতার  » «   বিশ্বনাথ ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড জাতীয় পার্টির কমিটি গঠন  » «   বিশ্বনাথে একই পরিবারের ৬ জন অগ্নিদগ্ধ হয়ে গৃহবধূ নিহতের ঘটনায় মামলা দায়ের  » «   বিশ্বনাথে রুমী হত্যাকান্ডে গ্রেফতারকৃত ৪ জনের ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তি  » «   বিশ্বনাথে মামলা তুলে নিতে বাদীকে হুমকি : থানায় জিডি  » «   বিশ্বনাথে বিষপানে অটোরিকশা চালকের আত্মহত্যা  » «   বিশ্বনাথে ওরুসের নামে অসামাজিক কর্মকান্ড বন্ধ রাখতে কঠোর অবস্থানে পুলিশ  » «   বিশ্বনাথে কিশোরী হত‌্যার রহস‌্য উদঘাটন : মূল হত‌্যাকারী’সহ গ্রেফতার ৪  » «   সিলেট-৩ আসনের জনগণের উন্নয়নে কাজ করতে চাই : এড. মিসবাহ সিরাজ  » «   বিশ্বনাথে প্রবাসী ইসলাম উদ্দিনের উদ্যোগে অসহায় শিশুদের ফ্রি খতনা প্রদান  » «   বিশ্বনাথে প্রতিপক্ষের হামলায় দিনমজুর আহত  » «   সিলেট বিভাগের মধ্যে ‘ই-নামজারি’ কার্যক্রমে বিশ্বনাথের সফলতা অর্জন  » «   বিশ্বনাথ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১০ কর্মকর্তা-কর্মচারী সংবর্ধিত  » «  

বেলজিয়ামকে ১-০ গোলে হারিয়ে ফাইনালে ফ্রান্স

স্পোর্টস ডেস্ক :: বিশ্বকাপ ইতিহাসে দ্বিতীয়বারের মতো সেমিফাইনাল খেলতে নেমেছিল বেলজিয়াম। বুকভরা আশা ছিল, ফ্রান্সকে হারিয়ে ফাইনালে যাবে তারা। সেই লক্ষ্যে গোটা ম্যাচে মরিয়া হয়ে খেলে গেল রেড ডেভিলরা। তবে শেষ পর্যন্ত তাদের প্রচেষ্টা আলোর মুখ দেখল না। হারের যন্ত্রণা নিয়ে মাঠ ছাড়তে হলো রবার্তো মার্টিনেজের শিষ্যদের। তাদের ১-০ গোলে হারিয়ে ফাইনালে উঠে গেল ফরাসিরা।

এ নিয়ে তৃতীয়বারের মতো ফাইনালে উঠল ফ্রান্স। প্রথমবার ১৯৯৮ সালে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল ফ্রেঞ্চরা। দ্বিতীয়বার ২০০৬ সালে রানার্স-আপ হয়েছিল তারা। ফের ফাইনালি লড়াইয়ে নাম লেখালো সাবেক বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা।

ফাইনালে উঠার লড়াইয়ে সেন্ট পিটার্সবার্গে মুখোমুখি হয় ফ্রান্স-বেলজিয়াম। দুদলই আক্রমণাত্মক শুরু করে। প্রথম সুযোগ পায় বেলজিয়াম। তবে ১৫ মিনিটে হাতের নাগালে পাওয়া সুযোগ কাজে লাগাতে পারেননি এডেন হ্যাজার্ড। পাল্টা আক্রমণে ২৩ মিনিটে সুযোগ পায় ফ্রান্স। কিন্তু তারাও স্বার্থ হাসিল করতে পারেনি। হাতে পাওয়া সুযোগ নষ্ট করেন অলিভিয়ের জিরু।

এরপর অ্যাটাক-কাউন্টার অ্যাটাকে এগিয়ে চলে খেলা। উভয় দলই একাধিক সুযোগ পায়। তবে ফুটবল দেবী কাউকেই খুশি করেননি। ৩৭ মিনিটে নিশ্চিত গোল বাঁচিয়ে দেন বেলজিয়ান গোলরক্ষক কর্তোয়া। এর মিনিট দুয়েক পর ফ্রান্সকে রক্ষা করেন গোলপ্রহরী লরিস। শেষ পর্যন্ত গোলের খাতা ফাঁকা নিয়ে বিরতিতে যেতে হয় দুদলকে।

প্রথমার্ধে বঞ্চিত হলেও বিরতির পরই গোল পেয়ে যায় ফ্রান্স। ৫১ মিনিটে আঁতোয়া গ্রিজম্যানের বিষাক্ত কর্নার থেকে দুরন্ত হেডে নিশানাভেদ করেন স্যামুয়েল উমতিতি। এতে ১-০ গোলে এগিয়ে যায় ’৯৮ চ্যাম্পিয়নরা।

এগিয়ে গিয়ে দারুণ আত্মবিশ্বাসী দেখায় ফ্রান্সকে।গোলকিপার, রক্ষণ, মাঝমাঠ ও আক্রমণভাগের মাঝে দারুণ সমন্বয় গড়ে উঠে।

am-accountancy-services-bbb-1

সর্বশেষ সংবাদ