শুক্রবার, ১৮ জানুয়ারি, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ মাঘ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |
সর্বশেষ সংবাদ
বিশ্বনাথে ওয়ান পাউন্ট হসপিটালের উদ‌্যোগে ফ্রি চিকিৎসা সেবা প্রদান  » «   বিশ্বনাথে দুই বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেফতার  » «   বিশ্বনাথে পানি সংরক্ষণের জন্য নিজ জমিতে বোরো চাষিদের পুকুর খনন!  » «   বিশ্বনাথে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান : ৯টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা  » «   আল্লামা ফুলতলী’র ১১তম ঈসালে সওয়াব মাহফিল সম্পন্ন  » «   জগন্নাথপুরে প্রয়াত সামাদ আজাদের ৯৭তম জন্ম বার্ষিকী উদযাপন  » «   বিশ্বনাথে বিএনপি নেতা ফয়জুর রহমানের ইন্তেকাল  » «   বিশ্বনাথের রাজাগঞ্জ বাজারে দুটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে চুরি  » «   স্কাউটসরাই সোনার বাংলা বিনির্মানের প্রধান হাতিয়ার -শফিক চৌধুরী  » «   বিশ্বনাথ আইন-শৃংখলা কমিটির সভা : শেল্টারদাতা’সহ মাদক সম্রাট সুহেল বাহিনীকে গ্রেপ্তারের দাবী  » «   খাজাঞ্চী স্টেশন স্পোটিং ক্লাব’র নতুন কমিটি গঠন  » «   বিশ্বনাথে ইয়াবা’সহ গ্রাবাসীর হাতে আটক ২  » «   বালাগঞ্জে শাহনূর চৌধুরী মেধাবৃত্তির সনদ প্রদান  » «   বিশ্বনাথে নদীর তীরে জোরপূর্ব মাটি কাটার অভিযোগ  » «   যুক্তরাষ্ট্র যাত্রা উপলক্ষে বিশ্বনাথে ডাঃ প্রবীর কান্তি দে পিংকু সংবর্ধিত  » «  

অপারেশন থান্ডারবোল্ট ও বিশ্বনাথের সন্তান জেনারেল নাঈম

asfakরফিকুল ইসলাম জুবায়ের :: সিলেটের এক আলোকিত জনপদ বিশ্বনাথ । নিজস্ব ইতিহাস ও ঐতিহ্যে আজ এ জনপদ বেশ সমৃদ্ধ । শত শত বছরের ঐতিহ্যবাহী এ জনপদে জন্ম হয়েছে অসংখ্য আলোকিত সন্তানের । যাদের জন্য এলাকাবাসী গর্বিত । তাদেরই একজন ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাঈম আশফাক চৌধুরী । বিশ্বনাথের এই কৃতিসন্তান উপজেলার লামাকাজী ইউনিয়নের দিঘলী গ্রামের কৃতিসন্তান অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক ও সরকারী কর্মকর্তা মরহুম আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী ও ডাঃ আক্তারুন নেছার ৭ম পুত্র তিনি। যিনি বাংলাদেশ সেনাবাহিনীতে ব্রিগেডিয়ার জেনারেল পদে কর্মরত।

গুলশানের রেস্টুরেন্টে সন্ত্রাসী হামলায় ২০ জন নিহত হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছে আন্ত:বাহিনী জনসংযোগ অধিদপ্তর বা আইএসপিআর।

গতকাল এক প্রেস ব্রিফিংয়ে মিলিটারি অপারেশনন্সের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাঈম আশফাক চৌধুরী বলেন, জিম্মি উদ্ধারে শনিবার অভিযান শেষে ওই রেস্তোরাঁর ভেতরে ২০টি মৃতদেহ পাওয়া গেছে।

জিম্মি করার পর ধারালো অস্ত্র দিয়ে রাতেই তাদের হত্যা করা হয় বলে সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাঈম আশফাক বলেন, অভিযানকারীরা ভেতরে ঢোকার পর ২০ জনের মৃতদেহ পায়। এছাড়াও অভিযানে ৬ জন হামলাকারী নিহত হয়েছে এবং একজনকে আটক করা হয়েছে বলে জানান তিনি। এ ছাড়া গতকাল রাতে পুলিশের গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) সহকারী কমিশনার রবিউল ইসলাম ও বনানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সালাউদ্দিন সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত হন।

সেনাবাহিনীর নেতৃত্বে ঐ অভিযানটির নাম দেয়া হয়েছে অপারেশন থান্ডারবোল্ট। সেনা কমান্ডোরা ছাড়াও নৌ, পুলিশ, বিজিবি এবং র্যাবের সদস্যরা অংশ নেন। গুলশানের হোলি আর্টিজান রেস্টুরেন্টে সন্ত্রাসী হামলা এবং জিম্মি সংকটের প্রায় ১১ ঘণ্টা পর সকাল সাড়ে সাতটার পর কমান্ডো অভিযান শুরু হয়। আইএসপিআর বলছে, অভিযানে ১৩ জনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে।রেস্টুরেন্ট থেকে উদ্ধারকৃতদের মধ্যে এক জন জাপানী এবং দুই জন শ্রীলংকান নাগরিক রয়েছেন।

am-accountancy-services-bbb-1

সর্বশেষ সংবাদ