শুক্রবার, ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |
সর্বশেষ সংবাদ
শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে বিশ্বনাথে উপজেলা আ’লীগের সভা  » «   সিলেট-২ আসনে প্রার্থীতা ফিরে পেলেন মুহিবুর রহমান  » «   বিশ্বনাথে বধ্যভূমি স্মৃতিসৌধে প্রশাসনের শ্রদ্ধাঞ্জলি  » «   বিশ্বনাথের গোয়ালগাঁও গ্রামে ধানের শীষের সমর্থনে উঠান বৈঠক  » «   বিশ্বনাথে মুসলিম হেল্প ইউকের ‘এমএইচ মান্টিপারপাস সেন্টার’ বাস্তবায়নে সহযোগীতা কামনা  » «   সিলেট-২ আসনে ইলিয়াসপত্নী লুনার প্রার্থীতা স্থগিত  » «   বিশ্বনাথে ইয়াবা’সহ র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার ১  » «   সিলেট-২ আসনে প্রার্থীতা ফিরে পেলেন এনামুল হক সরদার  » «   গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে ধানের শীষ’কে বিজয়ী করতে হবে -লুনা  » «   মুহিব-সরদার’র প্রার্থীতা ফিরিয়ে দিতে আদালতের নির্দেশ  » «   বিশ্বনাথে সাংবাদিকদের সাথে এহিয়া চৌধুরী’র মতবিনিময়  » «   বিশ্বনাথে সাংবাদিকদের সাথে মুনতাছির আলীর মতবিনিময়  » «   সিলেট-২ আসনে মহাজোটের প্রার্থী ইয়াহ্ইয়া চৌধুরীর গণসংযোগ  » «   বিশ্বনাথে ‘দেওয়াল ঘড়ি’র সমর্থনে গণসংযোগ, প্রচার মিছিল-সভা  » «   বিশ্বনাথের মাছুখালী বাজারে পুলিশের উঠান বৈঠক  » «  

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবরে খোলা চিঠি

durbin shahআসসালামু আলাইকুম

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী

আপনার সদয় বিবেচনার জন্য নিবেদন করছি যে, লন্ডনে জ্ঞানের সাগর উপাধিতে ভুষিত মরমী কবি দুরবিন শাহ ছিলেন সিলেটের সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক উপজেলার প্রখ্যাত মরমী কবি ও মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক।

দুরবিন শাহ রচিত অগণিত গানের অধিকাংশেই রয়েছে গ্রামীন ইতিহাস, ঐতিহ্য, পল্লী-প্রকৃতি, দেহতত্ত্ব, আধ্যাত্মিকতা এবং সৃষ্টিজগতের মর্মকথা। ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে তিনি ছিলেন জীবনের কবি, যৌবনের কবি।

উপমহাদেশের সাংস্কৃতিক অঙ্গনে তাঁর গানের প্রভাব অপরিসীম। তার লেখা অগণিত গান বাংলাদেশ, ভারত, বৃটেন, ইউরোপ, মধ্যপ্রাচ্য ও যুক্তরাষ্ট্রে ব্যাপক সমাদৃত। তাঁর রচিত অসংখ্য হামদ, না’ত, প্রেমতত্ত্ব, দেহতত্ত্ব, বিরহ-বিচ্ছেদ, আবেগ-অনুভূতি, মারফতী, মুর্শিদী, জারী, সারী, ভাটিয়ালী ও পল্লীগীতি আজও রয়েছে জনপ্রিয়তার শীর্ষে।

১৯৬৮ সালে তিনি খৃষ্টান ফিল্ম ক্লাবের আমন্ত্রনে বৃটেন সফর করেন এবং সেখানে বাংলা, আরবী, ইংরেজী, উর্দু ভাষায় গান পরিবেশন করে হাজারো মানুষের হৃদয় জয় করে নেন। সে অনুষ্ঠানেই তাঁকে ‘জ্ঞানের সাগর’ উপাধিতে ভূষিত করা হয়। ২০০৪ এর ২১ নভেম্বর বৃটেনে দুরবিন শাহ লোক উৎসব উদযাপিত হয়। সেখানে অসংখ্য মানুষের সমাগম ঘটে।

১৯৭৭ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারী এ মহামনিষী ইনতেকাল করেন। তাকে ছাতক উপজেলা সদরের দুরবিন টিলায় সমাধিস্থ করা হয়।

বাংলা ভাষা, সাহিত্য ও সংস্কৃতিতে সিমাহীন অবদান থাকা সত্ত্বেও জ্ঞানের সাগর উপাধিতে ভূষিত এ মহান ব্যক্তিত্ব আজও অবহেলিত, উপেক্ষিত। আমাদের গুণী ব্যক্তিত্বদের রাষ্ট্রীয়ভাবে মরনোত্তর জাতীয় পুরস্কারে ভুষিত করার রেওয়াজ থাকলেও জ্ঞানের সাগর মরমী এ কবিকে ভুষিত করা হয়নি কোন জাতীয় পুরস্কারে।

তাঁর উত্তরসূরীরা একই পথের পথিক হলেও তারা অর্থাভাবে কঠিন সংগ্রামের মধ্যদিয়ে দিনযাপন করছেন। তাঁর স্মৃতিময় বাড়ী ও সমাধিস্থল একটি ঐতিহাসিক স্মৃতিময় স্থান হওয়া সত্ত্বেও পর্যটন উপযোগী করে গড়ে তোলার কোন উদ্যোগ নেয়া হচ্ছেনা।

সিলেট লেখক ফোরামের পক্ষ থেকে মরমী কবি দুরবিন শাহকে মরনোত্তর জাতীয় পুরস্কারে ভুষিত করার ব্যবস্থা গ্রহণে আপনার সদয় দৃষ্টি কামনা করছি।

এছাড়া দুরবিন শাহ একাডেমী প্রতিষ্ঠা, দুরবিন শাহকে নিয়ে গবেষণা, তাঁর স্মৃতিময় বাড়ী, সমাধিস্থল সংস্কার সংরক্ষণ ও পর্যটন উপযোগী করে গড়ে তোলা এবং তাঁর রচিত গানের রয়ালিটি উত্তরাধিকারীদের প্রদান করার বিষয়ে সদয় বিবেচনার জন্য সবিনয় অনুরোধ জানাচ্ছি।

সালামান্তে

নাজমুল ইসলাম মকবুল

সভাপতি

সিলেট লেখক ফোরাম

email: nazmulsylhet@gmail.com

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবরে  খোলা চিঠি

am-accountancy-services-bbb-1

সর্বশেষ সংবাদ